আজ পরীমণি ও রাজের বিয়ে, অথিতি মাত্র ২০-২৫ জন কেন?

আজ পরীমণি ও রাজের বিয়ে, অথিতি মাত্র ২০-২৫ জন কেন?

পরীমণি ও রাজের কথা মতে, তাদের বিয়ে হয়েছে ২০২১ সালের ১৭ অক্টোবর। আর বিয়ের কথা সামনে আনেন ১০ জানুয়ারি। বাবা-মা হচ্ছেন এ খবর দেয়ার মাধ্যমে তারা যে বিয়ে করেছেন সে খবরও দেন। সেই পরীমণি ও রাজ আজ শনিবার (২২ জানুয়ারি) আবার বিয়ে করছেন।

শুক্রবার (২১ জানুয়ারি) দিবাগতর রাতে বেশ ঘটা করেই হলুদ সন্ধ্যা হলো তাদের। আর আজ আনুষ্ঠানিকভাবে হচ্ছে বিয়ে। তাদের হলুদ সন্ধ্যার কিছু ছবি পরীমণি ও নির্মাতা চয়নিকা চৌধুরী ফেসবুকে পোস্ট করেছেন। অবশেষে বেশ ঘটা করে হয়ে গেল শরিফুল রাজ ও পরীমণির হলুদ সন্ধ্যা। গতকাল শুক্রবার ২১ জানুয়ারি দিনগত রাতে এই ঘরোয়া আয়োজন হয়। আর বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা হচ্ছে আজ শনিবার ২২ জানুয়ারি রাতে।

জানা গেছে, অনেকটা ঘরোয়া আয়োজনে হওয়ায় দুইপরিবারের খুব বেশি অ'তিথি থাকছেন না বিয়েতে। সব মিলিয়ে ২০-থেকে ২৫ জনের মতো অ'তিথি থাকছেন। অনেকের মনে স্বভাবতই প্রশ্ন আসার কথা ১৭ অক্টোবর বিয়ে করলে আজ আবার বিয়ে কেনো? প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন পরীমণি নিজেই। জানা যায়, সেদিন তাদের বিয়েটা অনেকটা পুতুলের বিয়ের মতো হয়েছে। ছিল না কোনো আনুষ্ঠানিকতা, আর রাজের পরিবারের সদস্যদের অনেকেই তো জানতেনই না।

আনুষ্ঠানিকভাবে অনেকটা ঘরোয়া আয়োজনেই আবার তাদেরকে বর-বধু সাজতে হচ্ছে। এদিকে পাঠকরা একটু গোলমালে পড়ে যেতে পারেন রাজ-পরীর হলুদের খবরে। কারণ, এরমধ্যেই নতুন বছরের সবচেয়ে বড় সারপ্রাইজটি এসেছে এই তারকা দম্পতির কাছ থেকে। গত ১০ জানুয়ারি জানিয়েছেন, ২০২১ সালের ১৭ অক্টোবর তারা বিয়ে করেছেন! এরমধ্যে বাবা-মা হতে চলেছেন তারা।

অনেকের মনে স্বভাবতই প্রশ্ন আসার কথা ১৭ অক্টোবর বিয়ে করলে আজ আবার বিয়ে কেনো? 

প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন পরীমণি নিজেই। জানা যায়, সেদিন তাদের বিয়েটা অনেকটা পুতুলের বিয়ের মতো হয়েছে। ছিল না কোনো আনুষ্ঠানিকতা, আর রাজের পরিবারের সদস্যদের অনেকেই তো জানতেনই না। আনুষ্ঠানিকভাবে অনেকটা ঘরোয়া আয়োজনেই আবার তাদেরকে বর-বধু সাজতে হচ্ছে।

এদিকে জানা গেছে, রাজের এবারের বিয়েতেও খুব বেশি অ'তিথি থাকছেন না। দুইপরিবার মিলে ২০ থেকে ২৫ জনের মতো লোক থাকছেন। তবে এর মধ্যে গতকাল গায়ে হলুদের সন্ধ্যায় চয়নিকা চৌধুরী ছাড়াও হাজির ছিলেন নির্মাতা গিয়াস উদ্দিন সেলিম ও রেদোয়ান রনিসহ বেশ কয়েকজন নির্মাতা। গিয়াস উদ্দিন সেলিমের ‘গুনিন’ ছবির শুটিং শুরুর পর শরিফুল রাজের সাথে পরিচয় হয় পরীমণির। পরিচয়ের মাত্র সাত দিনের মধ্যে প্রে'ম হয় তাদের এরপর বিয়ে। সুখবর দিয়েছেন বাবা-মা হওয়ারও।

এর আগে, পরীমণি জানান, গুনিন ছবির শুটিং করতে গিয়ে ওর সাথে পরিচয়। কাজ করতে করতে দারুণ একটা স'ম্পর্ক তৈরি হয়। এরপর প্রে'ম। আমাদের প্রে'মের বয়স মাত্র ৭ দিন। সাত দিন প্রে'মের পরই আম'রা বিয়ের সিদ্ধান্ত নেই। আর এমন বিস্ময়কর জোড়া খবরের পর গতকাল শুক্রবার দিবাগত রাতে সোশ্যাল মিডিয়ায় নতুন করে ভাই'রাল হলো রাজ-পরী দম্পতির গায়েহলুদের ছবি। যে অনুষ্ঠানে যথারীতি এই দম্পতির মুরুব্বী হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তিন নির্মাতা গিয়াস উদ্দিন সেলিম, চয়নিকা চৌধুরী ও রেদওয়ান রনি। আরও ছিলেন রাজ-পরী পরিবারের নিকট স্বজনরা।

এ বিষয়ে সেলিম বলেন, ‘সত্যিকার অর্থে এতদিন যা হয়েছে সেখানে তো আসলে আনুষ্ঠানিকতার সুযোগ ছিলো না। তো এখন সেই আনুষ্ঠানিকতাটা ঘরোয়াভাবে ওরা করছে। তাছাড়া এতদিন দুই পরিবারের সদস্যদের মধ্যেও সেভাবে দেখা-সাক্ষাতের সুযোগ হয়নি। যেটা এখন হলো। রাজ-পরীর বাসাতেই ২০ জনের মতো অ'তিথি নিয়ে হলুদের আয়োজন হয়েছে। একইভাবে আজ শনিবার ২২ জানুয়ারি রাতেও একটা বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা হবে।


Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url